স্যুটকেসের ভেতর থেকে তরুণীর মরদেহ !



সাভারের আশুলিয়ায় একটি বাসে ‘যাত্রীর’ ফেলে যাওয়া স্যুটকেস থেকে এক তরুণীর মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। গতকাল শনিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১১টার দিকে নবীনগর বাস স্ট্যান্ড এলাকায় সেবা গ্রীন লাইন পরিবহনের একটি বাস (ঢাকা মেট্রো ব ১৫-৩৯৮৭) থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

সেবা গ্রীন লাইন পরিবহনের নবীনগর স্ট্যান্ডের কাউন্টারের ব্যবস্থাপক মো. লিটন বলেন, ঢাকার গাবতলী থেকে গোপালগঞ্জে যাত্রী পরিবহন করে সেবা গ্রীন লাইন পরিবহন। শুক্রবার মোট ৪০ জন যাত্রী নিয়ে গোপালগঞ্জের উদ্দেশে বাসটি ছেড়ে যায়। দুপুর আড়াইটার দিকে নবীনগর কাউন্টার থেকে ওঠেন ১৯ জন। ওই বাসের শ্রমিকরা জানিয়েছেন, আরিচা এলাকায় ফেরি পার হওয়ার পরে নবীনগর থেকে ওঠা এইচ-১ সিটের এক যাত্রীকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি। তবে গোপালগঞ্জের নাজিরপুরে পৌঁছে ওই যাত্রীর ফেলে যাওয়া কালো রঙের একটি স্যুটকেস পাওয়া যায়। স্যুটকেস নিয়েই বাসটি ঢাকায় ফিরে আসে। বাসের চালক লালু মিয়া, সুপারভাইজার সবুজ শেখ ও হেলপার নয়নের উপস্থিতিতে আশুলিয়া থানা পুলিশ ও পিবিআই’র কর্মকর্তারা স্যুটকেস খুলে এক তরুণীর মরদেহ উদ্ধার করেন।

আশুলিয়া থানার উপপরিদর্শক মাসুদ মুন্সি বলেন, ধারণা করা হচ্ছে, কয়েকদিন আগে ওই তরুণীকে হত্যা করা হয়েছে। তার মরদেহ পচতে শুরু করেছে।

আশুলিয়া থানার পরিদর্শক ফজলুল হক দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘ওই তরুণীকে হত্যার পরে তার মরদেহ স্যুটকেসে ভরে যাত্রীবেশে কৌশলে বাসে রেখে গেছে হত্যাকারী। তবে কীভাবে ও কেন ওই তরুণীকে হত্যা করা হয়েছে সে বিষয়ে এখনো স্পষ্ট করে কিছু বলা যাচ্ছে না।’

Post a Comment

0 Comments